মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষায় মানতে হবে যেসব নির্দেশনা

0
19

বার্তাকক্ষ ,,আগামীকাল শুক্রবার ২০২২-২৩ শিক্ষাবর্ষের মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। এ দিন সকাল ১০টায় সারাদেশের ১৯টি কেন্দ্রের ৫৭টি ভেন্যুতে একযোগে ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। ঢাকায় ভেন্যুর সংখ্যা ১৮টি। এবার মেডিকেলে ভর্তির জন্য আবেদন করেছেন এক লাখ ৩৯ হাজার ২১৭ জন। প্রতিটি আসনের বিপরীতে ১২ জন পরীক্ষার্থী লড়বেন।
পরীক্ষায় অংশগ্রহণকারীদের জন্য বেশ কিছু নির্দেশনা দিয়েছে স্বাস্থ্য শিক্ষা অধিদপ্তর। এ নির্দেশনাগুলো ভর্তিচ্ছুদের আবশ্যিকভাবে পালন করতে হবে।
স্বাস্থ্য শিক্ষা অধিদপ্তরের নির্দেশনায় যেসব নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে
সকাল সাড়ে ৯টার মধ্যে কেন্দ্রে প্রবেশ করতে হবে। সাড়ে ৯টার পর প্রধান ফটক বন্ধ হয়ে যাবে। সাড়ে ৯টার পূর্বেই শিক্ষার্থীদের কেন্দ্রে প্রবেশ করতে বলা হয়েছে।
কেন্দ্রের শৃঙ্খলা রক্ষায় যেসব নিয়ম মানতে হবে
পরীক্ষার্থীকে হল পরিদর্শকের নির্দেশ ও সিদ্ধান্ত মেনে চলতে হবে। পরীক্ষা শেষ না হওয়া পর্যন্ত এবং হল পরিদর্শকের অনুমতি ব্যতীত পরীক্ষার্থীকে পরীক্ষা কক্ষ ত্যাগ করতে দেওয়া হবে না। পরীক্ষার্থীকে অসুদপায় অবলম্বন অথবা বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করতে অথবা অন্যের সাহায্য নিতে অথবা অন্যকে সাহায্য করতে দেখা গেলে সংশ্লিষ্ট পরীক্ষার্থীর বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়া হবে এবং তার উত্তরপত্র বাতিল বলে গণ্য হবে।
পরীক্ষার হলে মোবাইলফোন, কোনো ধরনের ডিজিটাল ডিভাইস, ক্যালকুলেটর, হাতঘড়ি বা পকেটঘড়ি নিয়ে প্রবেশ করা সম্পূর্ণভাবে নিষিদ্ধ। এরপরও পরীক্ষার হলে কারও কাছে উল্লিখিত নিষিদ্ধ কোনো কিছু পাওয়া গেলে অথবা কাউকে এ ধরনের কোনো ডিভাইস ব্যবহার করতে দেখা গেলে তার উত্তরপত্র বাতিল বলে গণ্য হবে।
পরীক্ষার হলে সব পরীক্ষার্থী কোভিড ১৯ স্বাস্থ্যবিধি মেনে পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করবেন। কোনো পরীক্ষার্থী পরীক্ষা চলাকালীন সময়ে দুই কান ঢেকে রাখতে পারবেন না। হল পরিদর্শকরা উত্তরপত্রে স্বাক্ষর প্রদানের সময়ে শনাক্তকরণের জন্য প্রয়োজনে পরীক্ষার্থীর মুখমণ্ডল খোলার নির্দেশনা দিতে পারবেন।
প্রশ্নপত্র ও উত্তরপত্র সংক্রান্ত নিয়মাবলী
পরীক্ষা কেন্দ্রে উত্তরপত্রের (OMR Sheet) ওপর মুদ্রিত ১০ অঙ্কের সেট কোডটি প্রশ্নপত্রে মুদ্রিত সেট কোডের সঙ্গে না মিললে কিংবা প্রশ্নপত্রে ক্রমানুসারে এক থেকে একশটি প্রশ্ন না থাকলে উত্তর প্রশ্নপত্রটি পরিবর্তন করে নিতে হবে। উত্তরপত্রের সব স্থানেই কালো কালির বল পেন ব্যবহার করতে হবে।
রোল নম্বর ও সিরিয়াল নম্বর নির্দিষ্ট স্থানে ইংরেজিতে লিখে তারপর সংশ্লিষ্ট বৃত্তগুলো তদানুযায়ী যথাযথভাবে ভরাট করতে হবে। কোনো প্রকার ঘষামাজা বা কাটাকাটি করলে উত্তরপত্র বাতিল বলে গণ্য হবে। বৃত্তগুলো নিচের প্রদর্শিত পদ্ধতিতে এমনভাবে ভরাট করতে হবে যেন ভেতরের লেখাটি দেখা না যায়।
উত্তরপত্রের নির্দিষ্ট স্থানে প্রবেশপত্র অনুযায়ী স্বাক্ষর প্রদান করতে হবে এবং স্পষ্টভাবে নাম লিখতে হবে, অন্যথায় উত্তরপত্র বাতিল বলে গণ্য হবে। উত্তর প্রদান করার আগে পরীক্ষার্থীকে প্রশ্নপত্রের সঙ্গে সংযুক্ত উত্তরপত্রটি (OMR Sheet ) নিজ দায়িত্বে সাবধানতার সঙ্গে আলাদা করে নিতে হবে।
প্রশ্নপত্রের সঙ্গে দেওয়া উত্তরপত্রে প্রতিটি প্রশ্নের জন্য চারটি সম্ভাব্য উত্তরের বৃত্ত রয়েছে। তার মধ্য হতে সঠিক উত্তরের বৃত্তটি পরিচ্ছন্নভাবে ওপরে প্রদর্শিত নিয়ম মেনে সম্পূর্ণ ভরাট করতে হবে। উত্তরপত্রের নির্দিষ্ট বৃত্তসমূহ ভরাট করা এবং নির্দেশিত স্থানে যথাযথ তথ্য প্রদান করতে হবে। এতদ্ব্যতিত অন্য কোনো স্থানে কিছু লিখা সম্পূর্ণ নিষিদ্ধ এবং লিখলে উত্তরপত্র বাতিল বলে গণ্য হবে।
খসড়ার জন্য প্রশ্নপত্র ব্যবহার করা যাবে। কোনো পৃথক কাগজ ব্যবহার করা যাবে না। প্রশ্নপত্রের কোনো অংশ ছেড়া যাবে না কিংবা কারও সঙ্গে বদল করা যাবে না। উত্তরপত্রে হল পরিদর্শকের স্বাক্ষর করার সময়ে পরীক্ষার্থীকে প্রশ্নপত্র ও উত্তরপত্র আলাদা করা অবস্থায় রাখতে হবে। উত্তরপত্রের নির্দিষ্ট স্থানে হল পরিদর্শকের স্বাক্ষর গ্রহণ এবং সম্পূর্ণ নাম লিখা নিশ্চিত করতে হবে। কর্তব্যরত হল পরিদর্শকের স্বাক্ষর ও নামবিহীন উত্তরপত্র বাতিল বলে গণ্য হবে।
পরীক্ষা শেষে হল পরিদর্শকরা প্রশ্নপত্র ও উত্তরপত্র আলাদা অবস্থায় পরীক্ষার্থীর কাছ থেকে গ্রহণ করবেন এবং আলাদাভাবে নির্দিষ্ট খামে ভরবেন।
উত্তরপত্র মূল্যায়নের নীতিমালা
প্রতিটি সঠিক উত্তরের জন্য ১ নম্বর প্রদান করা হবে এবং প্রতিটি ভুল উত্তরদানের জন্য ০.২৫ নম্বর কর্তন করা হবে।