Friday, October 7, 2022
হোম আজকের পত্রিকাঝিনাইদহে দৃষ্টিপ্রতিবন্ধী ঢাবি শিক্ষার্থীর আমরণ অনশন

ঝিনাইদহে দৃষ্টিপ্রতিবন্ধী ঢাবি শিক্ষার্থীর আমরণ অনশন

Published on

সাম্প্রতিক সংবাদ

পাকিস্তানকে হারানো থাইল্যান্ডের টানা দ্বিতীয় জয়

বার্তাকক্ষ বাংলাদেশ ও শ্রীলঙ্কার কাছে হারা থাইল্যান্ড ইতিহাস গড়েছিল পাকিস্তানকে হারিয়ে। ২৪ ঘণ্টারও কম সময়ের...

শেষ বিশ্বকাপের আগে নার্ভাস মেসি

বার্তাকক্ষ বিদায়ের রাগিনী শুনিয়ে দিলেন লিওনেল মেসি। কাতারেই শেষ বিশ্বকাপ খেলার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন আর্জেন্টিনা অধিনায়ক।...

মন ভেঙে গেলে শরীরে যা ঘটে

বার্তাকক্ষ হৃদয় তারাই ভাঙে, যারা হৃদয়ের সবচেয়ে কাছে থাকে। কারণ দূর থেকে কোনোকিছু ভাঙা সহজ...

টুঙ্গিপাড়ায় বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা

বার্তাকক্ষ গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে শ্রদ্ধা নিবেদন করেছেন প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনা...

ঝিনাইদহ সংবাদদাতা

সরকারি চাকুরির দাবিতে আবারো আমরণ অনশন শুরু করা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের দৃষ্টি প্রতিবন্ধী শিক্ষার্থী শাহীন আলম গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়েছেন। রোববার দুপুরে অনশনস্থলে প্রখর রৌদ্রে তাকে অচেতন হয়ে পড়ে থাকতে দেখা যায়। দাবি পুরণ না হলে সেখানেই মৃত্যুবরণ করবেন বলে তিনি শপথ নিয়েছেন। এর আগে তিনি গত ৯ মে একই স্থানে অনশন শুরু করেছিলেন।
রোববার সকালে ঝিনাইদহ শহরের প্রেরণা একাত্তর এলাকার কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার চত্বরে এই কর্মসূচি শুরু করেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের রাষ্ট্র বিজ্ঞান বিভাগের মাস্টার্সেও শিক্ষার্থী শাহীন আলম। গণমাধ্যম কর্মীদেও তিনি জানান, ২০১৫-২০১৬ সেশনে রাষ্ট্র বিজ্ঞানে অনার্স শেষ করেছেন। দেশে বিদেশে দৃষ্টি প্রতিবন্ধীদের বিনামূল্যে তিনি অনলাইনে কম্পিউটার প্রশিক্ষণ দিয়ে আসছেন। তার মোট শিক্ষার্থী এখন ২৩৯ জন। তার যোগ্যতা অনুযায়ী প্রধানমন্ত্রীর কাছে ইনফরমেশন অফিসার, কমিউনিকেশন, টিচার ও ট্রেইনারের সরকারি চাকরির দাবি করেন তিনি। দাবি মেনে না নিলে অনশন কর্মসূচি ভঙ্গ করবেন না। শাহীন জানান, গত ০৯ মে ঝিনাইদহ কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে চাকরীর দাবিতে আমরণ অনশন কর্মসূচি পালন করেছিলেন। এই খবর শুনে ঝিনাইদহ জেলা প্রশাসক মনিরা বেগম দুইজন কর্মকর্তাকে সেখানে পাঠিয়ে চাকুরির আশ্বাস দেন। শাহিনকে দুইদিন ঝিনাইদহ সার্কিট হাউসে রেখে ২৫ টাকা বেতনে ডাটা এন্ট্রি অপারেটর ও ৫ হাজার টাকার চুক্তিতে শিক্ষকতার চাকুরির প্রস্তাব দেয়া হয়। কিন্তু সেই প্রস্তাব তিনি প্রত্যাখান করেন বাড়ি ফিরে যান। ওই সময় সাংবাদিকদের কাছে তিনি আবারো আমরণ অনশন করবেন বলে জানান। ৬৬ দিন পর তিনি আবারও একই দাবিতে অনশন শুরু করেছেন। প্রতিবন্ধী শাহীন আলম ঝিনাইদহের মহেশপুর উপজেলার আজমপুর ইউনিয়নের আলমপুর গ্রামের দিনমজুর আব্দুল কাদেরের ছেলে।

spot_img
spot_img

এধরণের সংবাদ আরো পড়ুন

কেশবপুরে কৃষকলীগের পূজা মণ্ডপ পরিদর্শন

সোহেল পারভেজ, কেশবপুর কেশবপুর উপজেলার বিভিন্ন পূজা ম-প পরিদর্শন করেছেন কৃষকলীগে নেতৃবৃন্দ। মঙ্গলবার সংগঠনের উপজেলা,...

দেবহাটায় জাতীয় কন্যা শিশু দিবস উদ্যাপন

দেবহাটা প্রতিনিধি : ‘সময়ের অঙ্গীকার কন্যা শিশুর অধিকার’ প্রতিপ্রাদ্য নিয়ে দেবহাটায় জাতীয় কন্যাশিশু দিবস উদ্যাপন...

শার্শায় ভুল মানুষের দ্বারা রাজনীতি পরিচালিত হওয়ায় প্রকৃত নেতাকর্মীরা অত্যাচার জুলুম নির্যাতনের শিকার : আশরাফুল আলম লিটন

বেনাপোল প্রতিনিধি : যশোর জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বেনাপোল পৌরসভার সাবেক মেয়র আশরাফুল...