Saturday, December 3, 2022
হোম আইটিমুখের কথায় কোড লেখার সুবিধা দেবে গিটহাব

মুখের কথায় কোড লেখার সুবিধা দেবে গিটহাব

Published on

সাম্প্রতিক সংবাদ

নেতৃত্ব পেয়ে রোমাঞ্চিত লিটন

বার্তাকক্ষ: নিয়মিত অধিনায়ক তামিম ইকবাল চোটের কারণে ছিটকে গেছেন। ভারতের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজে কে হবেন...

কাতার বিশ্বকাপে গ্রুপ পর্বে বাতিল ১৭ গোল

বার্তাকক্ষ: কাতারে ফুটবল বিশ্বমঞ্চে গ্রুপ পর্বের সবগুলো ম্যাচ শেষ হয়েছে। গ্রুপ পর্বে ৪৮ ম্যাচে বাতিল...

ডি মারিয়া কি খেলতে পারবেন? যা জানালেন কোচ

বার্তাকক্ষ: অ্যাঞ্জেল ডি মারিয়া কি ফিট আছেন? অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে আজ (শনিবার) শেষ ষোলোর লড়াইয়ে তিনি...

আর্জেন্টিনাকে হারানোর ৩২ বছর পর ক্যামেরুনের ব্রাজিলবধ

বার্তাকক্ষ: এ নিয়ে অষ্টমবারের মতো বিশ্বকাপ খেলেছে ক্যামেরুন। বিশ্বকাপে তাদের সেরা সাফল্য কোয়ার্টার ফাইনাল। ১৯৯০...

বার্তাকক্ষ কিবোর্ডে টাইপ করার পরিবর্তে মুখের কথার মাধ্যমে প্রোগ্রামারদের কোড লেখার সুবিধা চালু করতে চায় গিটহাব। এ লক্ষ্যে কোপাইলট পরিষেবা গ্রহণকারীদের জন্য হেই, গিটহাব নামের কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা (এআই) সম্পন্ন পরীক্ষামূলক সেবা চালু করেছে প্রতিষ্ঠানটি। খবর গিকি গ্যাজেটস।প্রতিবেদনের তথ্যানুযায়ী, হেই, গিটহাব পরিষেবাটি অ্যাপলের সিরি, অ্যামাজনের অ্যালেক্সা বা গুগল অ্যাসিস্ট্যান্টের মতো বাজারে প্রচলিত ভয়েস অ্যাসিস্ট্যান্টের আদলে কাজ করবে। চলতি বছরের শুরুতেই কোপাইলট চালু করেছে গিটহাব। এটি ব্যবহারে সাবস্ক্রাইবারদের প্রতি মাসে ১০ ডলার ফি দিতে হয়। প্রোগ্রামারের কোড এডিটরের মধ্যেই নতুন কোডের পরামর্শ দেয় কোপাইলট।
কোডের পাশাপাশি ভিজ্যুয়াল স্টুডিও কোড, নিওভিম এবং জেটব্রেইনের মতো ইন্টিগ্রেটেড ডেভেলপমেন্ট এনভায়রনমেন্টে (আইডিই) টাইপ করার সময়ে কোডের পরবর্তী সম্ভাব্য লাইনও জানিয়ে দেয় এ কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা।
এক ব্লগপোস্টে নতুন ভয়েস অ্যাসিস্ট্যান্টের ভূমিকা ব্যাখ্যা করে গিটহাব জানায়, কণ্ঠস্বরের মাধ্যমে কোড লেখার সুবিধাটি ডেভেলপারদের কাছে আনতে পেরে আমরা আনন্দিত। বিশেষ করে যাদের টাইপ করতে সমস্যা হয় তাদের জন্য। আপাতত কেবল ভিএস কোডের মধ্যে কোডিং করার সময়েই কিবোর্ড ব্যবহারের প্রয়োজনীয়তা কমিয়ে আনবে হেই, গিটহাব। ভবিষ্যতে গবেষণা আর পরীক্ষা-নিরীক্ষার মাধ্যমে এর সক্ষমতা আরো বাড়ানোর প্রত্যাশাও ব্যক্ত করেছে প্লাটফর্মটি
কথার মাধ্যমে কোড লেখার পাশাপাশি এর উপযোগিতা যাচাইয়ের ক্ষেত্রে হেই, গিটহাব কাজে আসবে বলে ভার্জ প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে। কথা বলার মাধ্যমে প্রোগ্রামাররা আলাদা কোডের লাইন এক জায়গা থেকে সরিয়ে অন্য জায়গায় নিতে পারবেন। এছাড়া রান দ্য প্রোগ্রাম বা টগল জেন মোডের মতো ভয়েস কমান্ড দিয়েই ভিজ্যুয়ালি স্টুডিও কোড নিয়ন্ত্রণ করা যাবে।
প্রোগ্রামারদের জন্য এ ভয়েস অ্যাসিস্ট্যান্ট নির্মাণের কাজটি করছে গিটহাব, নেক্সট। গবেষক ও প্রকৌশলীদের দলটি সফটওয়্যার নির্মাণের ভবিষ্যৎ নিয়ে অনুসন্ধান করছে। হেই, গিটহাব ফিচারটি পুরোপুরি বাণিজ্যিক পণ্য হিসেবে বাজারজাত করা হবে কিনা, সে বিষয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে কিছু জানা যায়নি। তবে বিভিন্ন বাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠানের কাছে গিটহাব কোপাইলটের লাইসেন্স বিক্রি করা হবে বলে প্রকাশিত প্রতিবেদন সূত্রে জানা গিয়েছে। আগ্রহীদের তালিকাও তৈরি করবে প্লাটফর্মটি।

spot_img
spot_img

এধরণের সংবাদ আরো পড়ুন

অ্যাপ স্টোর নীতিমালা নিয়ে কড়া সমালোচনায় জাকারবার্গ

বার্তাকক্ষ অ্যাপলের অ্যাপ স্টোর নীতিমালাকে ‘স্বার্থের সংঘাত’ হিসেবে অভিহিত করেছেন মেটা প্লাটফর্মের সিইও মার্ক...

দ্বিগুণ শক্তিশালী সনির সেন্সরসহ আসবে আইফোন ১৫

বার্তাকক্ষ অ্যাপলের পরবর্তী আইফোনের জন্য অত্যাধুনিক সেন্সর সরবরাহ করবে সনি গ্রুপ। নিক্কেই এশিয়ার এক...

মেটাভার্সে মনোযোগ বৃদ্ধি অ্যাকটিভ রেপ্লিকা অধিগ্রহণ করেছে মজিলা

বার্তাকক্ষ ব্যবহারকারীদের মেটাভার্স অভিজ্ঞতা দিতে ‘অ্যাকটিভ রেপ্লিকা’ অধিগ্রহণ করেছে মজিলা। গত ৩০ নভেম্বর এ...