Thursday, December 1, 2022
হোম শহর-গ্রামবাগেরহাটবাগেরহাটে স্বেচ্ছাসেবক দলের সম্পাদককে গুলি করে হত্যা

বাগেরহাটে স্বেচ্ছাসেবক দলের সম্পাদককে গুলি করে হত্যা

Published on

সাম্প্রতিক সংবাদ

পুতিনের রাশিয়ার সঙ্গে যুদ্ধবিরতির সম্ভাবনা দেখছে না ইউক্রেন

বার্তাকক্ষ রাশিয়া ও ইউক্রেনের নেতারা একটি কূটনৈতিক আলোচনার মাধ্যমে ৯ মাস দীর্ঘ যুদ্ধের অবসান...

পাপড়ি-করামত আলী সাহিত্য পুরস্কার পেলেন তানভীর সিকদার

পাপড়ি-করামত আলী সাহিত্য পুরস্কার পেয়েছেন তরুণ কবি তানভীর সিকদার। তার দ্বিতীয় কাব্যগ্রন্থ ‘সেফটিপিনে গেঁথে...

১১২ বছরের রেকর্ড ভেঙে দিলো ইংল্যান্ড

বার্তাকক্ষ সব শঙ্কাকে পাশ কাঁটিয়ে নির্ধারিত সময়েই পাকিস্তানের বিপক্ষে মাঠে নামে ইংল্যান্ড। বৃহস্পতিবার (১...

আইজিপির নেতৃত্বে আইনের শাসনের ক্ষেত্র প্রস্তুতের আশা বিএনপি মহাসচিবের

বার্তাকক্ষ ‘রাজনৈতিক নিপীড়নমূলক বেআইনি, মিথ্যা ও গায়েবি মামলা দায়ের বন্ধ করা এবং দায়েরকৃত সব...

বাগেরহাট সংবাদদাতা
বাগেরহাটে প্রতিপক্ষের গুলিতে জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের সাধারণ সম্পাদক ও ছাত্রদলের সাবেক সাধারণ সম্পাদক নুরে আলম তানু ভুইয়া (৩৭) নিহত হয়েছেন। শুক্রবার (১১ নভেম্বর) রাত সোয়া ৯টার দিকে বাগেরহাট শহরের বাসাবাটি পদ্মপুকুরের মোড় এলাকায় গুলিবিদ্ধ হন তিনি। স্থানীয়রা উদ্ধার করে বাগেরহাট ২৫০ শয্যা জেলা হাসপাতালে নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। নিহত নুরে আলম তানু ভুইয়া বাগেরহাট শহরের বাসাবাটি এলাকার মৃত. আব্দুর রউফ ভুইয়ার ছেলে। তিনি বাগেরহাট জেলা ছাত্র দলের সাবেক সাধারণ সম্পাদক এবং স্বেচ্ছাসেবক দলের সাধারণ সম্পাদক ছিলেন। একই এলাকার টুটুল শেখের ছেলে ফরিদের গুলিতে তানু নিহত হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।
তানুর বড় ভাই আবুল কাশেম সেলিম ভুইয়া বলেন, আমার ভাইকে ওরা গুলি করে মেরে ফেলেছে। নিহত নুরে আলম তানু ভুইয়ার বোন লোপা বলেন, রাত ৯টার দিকে বাড়ি থেকে বের হয়ে বগা ক্লিনিকের দিকে যায় আমার ভাই তানু। কিছুক্ষণ পরেই পরপর চারটি গুলির শব্দ পাই। পরে হাসপাতালে নিলে চিকিৎসকরা আমার ভাইকে মৃত ঘোষণা করেন। আমাদের রাজনৈতিক প্রতিপক্ষরা এই হত্যাকান্ড ঘটিয়েছে। বাগেরহাট জেলা পুলিশের গণমাধ্যম শাখার সমন্বয়ক পরিদর্শক এস এম আশরাফুল আলম বলেন, তানু ভূঁইয়া নামের এক ব্যক্তি ফরিদ নামের এক ব্যক্তির গুলিতে নিহত হয়েছেন। তানু ভুইয়া বিএনপি নেতা এবং চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী ছিলেন। তার নামে মাদক, বিস্ফোরক ও বিশেষ ক্ষমতা আইনে মোট ৮ট মামলা রয়েছে। এছাড়া বন্ধুকধারী ফরিদকে আটক করতে পুলিশের একাধিক দল কাজ করছে। ফরিদের নামে হত্যাসহ বিভিন্ন অপরাধে ৫টি মামলা রয়েছে। এ বিষয়ে জেলা বিএনপির সাবেক সভাপতি এম এ সালাম বলেন, তানু ভূঁইয়া স্বেচ্ছাসেবক দলের সাধারণ সম্পাদক। আন্দোলন সংগ্রামে রাজপথে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে। তাই পরিকল্পিতভাবে তাকে হত্যা করা হয়েছে। আমরা এ ঘটনায় দোষীদের গ্রেপ্তারপূর্বক আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানাই।

spot_img
spot_img

এধরণের সংবাদ আরো পড়ুন

সাতক্ষীরায় স্বর্ণের ১৬ বারসহ পাচারকারী আটক

নিজস্ব প্রতিবেদক॥ সাতক্ষীরার কলারোয়া সীমান্ত দিয়ে ভারতে পাচারকালে ১৬টি স্বর্ণের বারসহ এক যুবককে আটক করেছে...

ফ্রেন্ডশিপের ২০ বৎসর পূতি উপলক্ষে কোভিট যোদ্ধা মিলন কে সম্বর্ধনা

উৎপল মণ্ডল, ভূরুলিয়া জন্ম হোক যথা তথা কর্ম হোক ভালো। নশ্বর এই পৃথিবীতে, ক্ষণজন্মা কিছু...

রাজগঞ্জে মোটরসাইকেলে ভাড়ায় যাত্রীবহন পথ খুঁজে নিয়েছে শতাধিক বেকার যুবক 

প্রতিনিধি রাজগঞ্জ: যশোরের মণিরামপুর উপজেলার রাজগঞ্জে প্রায় শতাধিক বেকার যুবক মোটরসাইকেলে ভাড়ায় যাত্রী বহন করে...