Tuesday, February 7, 2023
হোম চিকিৎসাবেতনের টাকায় নমুনা সংগ্রহ, বিল পাচ্ছেন না ডিএনসিসির স্বাস্থ্য পরিদর্শকরা

বেতনের টাকায় নমুনা সংগ্রহ, বিল পাচ্ছেন না ডিএনসিসির স্বাস্থ্য পরিদর্শকরা

Published on

সাম্প্রতিক সংবাদ

উন্মুক্ত হোক মালয়েশিয়া শ্রমবাজার

মালয়েশিয়া শ্রমবাজার নিয়ে দীর্ঘসময় জটিলতা চলছে। বারবার উদ্যোগ নিলেও ফলপ্রসূ হচ্ছে না। দুদিনের সফরে...

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ডিগ্রি তৃতীয় বর্ষের ফল প্রকাশ

বার্তাকক্ষ ,,জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে অনুষ্ঠিত ২০২০ সালের ডিগ্রি তৃতীয় বর্ষ চূড়ান্ত পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশ...

আশংকাজনক হারে বাড়ছে মুখের ক্যান্সার

বার্তাকক্ষ ,,বিশ্বে ক্যান্সারে মোট মৃত্যুর কারণের মধ্যে মুখের ক্যান্সার নবম। বিশ্বে সকল ক্যান্সারের মধ্যে...

১২ দিনেই শাহরুখের পাঠানের আয় ৮৩২ কোটি রুপি

বার্তাকক্ষ ,,চার বছর পর ফিরেই একের পর এক রেকর্ড গড়ে চলেছেন শাহরুখ খান। তার...

বার্তাকক্ষ সিটি করপোরেশনের স্বাস্থ্য পরিদর্শকরা ১১তম গ্রেডের পদাধিকারী। ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনে মোট স্বাস্থ্য পরিদর্শক আছেন ৮ জন, যাদের বেতন প্রায় ৩০ থেকে ৩৫ হাজার টাকা। তাদের দায়িত্ব হচ্ছে— বাজার থেকে ভেজাল, মানহীন ও অস্বাস্থ্যকর সন্দেহ হলে সেই খাদ্যের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষাগারে পাঠানো। সংগৃহীত নমুনাটি পরীক্ষায় ভেজাল, অস্বাস্থ্যকর ও মানহীন প্রমাণিত হলে ঢাকা দক্ষিণ সিটির নগর ভবনে অবস্থিত নিরাপদ খাদ্য আদালতে মামলা করা।অভিযোগ আছে, খাদ্যের নমুনা কিনতে পরিদর্শকরা ডিএনসিসির কাছে টাকা চেয়েও তা পান না। ফলে তাদের প্রত্যেককে নমুনা কিনতে প্রতি মাসে নিজের পকেট থেকে ৫ থেকে ১০ হাজার টাকা খরচ করতে হয়।
রাজধানীর বঙ্গবাজারে অবস্থিত আধুনিক খাদ্য পরীক্ষাগার ও প্রশিক্ষণ কেন্দ্রের তথ্যমতে, ২০২০ সালের জানুয়ারি মাস থেকে ২০২২ সালের মে পর্যন্ত সময়ে উত্তর সিটির ৮ জন স্বাস্থ্য পরিদর্শক মোট ৩৭৮টি খাদ্য নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষাগারে পাঠিয়েছেন। পরিদর্শকরা বলছেন, নমুনা কেনার জন্য ডিএনসিসির কাছে আবেদন জানিয়েও তারা টাকা পাননি।বিভিন্ন সময়ে খাদ্যের নমুনা কেনার টাকা চেয়ে সংশ্লিষ্ট বিভাগে জমা দেওয়া কয়েকটি নোট এ প্রতিবেদক দেখেছেন। চাহিদা অনুযায়ী অর্থ দেওয়া হয়েছে— এমন কোনও প্রমাণ পাওয়া যায়নি।
তবে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের স্বাস্থ্য পরিদর্শকরা জানিয়েছেন, কয়েক মাসের বিল বকেয়া থাকলেও তারা নমুনা কেনার টাকা পাচ্ছেন।
নাম প্রকাশ না করার শর্তে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের একজন খাদ্য পরিদর্শক বলেন, উত্তর সিটি করপোরেশনের ইতিহাসে নমুনার বিল বাবদ অর্থ পরিশোধের রেকর্ড নাই। এছাড়াও নমুনা সংরক্ষণের প্রয়োজনীয় খুঁটিনাটি সব জিনিস তাদের বেতনের টাকা খরচ করে কিনতে হচ্ছে। তিনি বলেন, ‘এত বছর আমরা কীভাবে খাদ্য নমুনা কিনেছি, সিটি করপোরেশনের কর্তা-ব্যক্তিরা তার কোনও খোঁজই নেন না। নিরাপদ খাদ্যের বিষয়টি তাদের কাছে অবহেলিত একটি বিষয়।’তিনি আরও জানান, সিটি করপোরেশনের পাঁচটি আঞ্চলিক কার্যালয় থেকে বহুবার নোট দিয়ে প্রয়োজনীয় টাকা চাওয়া হয়েছে, কিন্তু তার কোনও উত্তর আসে না।অপর একজন স্বাস্থ্য পরিদর্শক জানান, এ বিভাগে সৎভাবে চাকরি করার সুযোগ নেই। বেতনের টাকা দিয়ে খাদ্য নমুনা কিনতে হলে কে কিনবে, কীভাবে কিনবে এত অল্প বেতনে। প্রতিষ্ঠান যদি কাউকে দুর্নীতি করতে বাধ্য করে, তাহলে বলার কী আছে। ব্যবসায়ীরাও চান আমরা যেন ভেজাল দ্রব্য না ধরি। অথচ এতে জনগণ ও রাষ্ট্র ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে।
তিনি জানান, খাদ্য সংগ্রহ করার জন্য যাতায়াত বাবদ মাসিক ৩০০ টাকা এবং মামলার কাজে যাতায়াতের কোনও অর্থ তাদের বেতনের সঙ্গে অন্তর্ভুক্ত নেই।
ভুক্তভোগী পরিদর্শকদের ভাষ্য— করপোরেশনের স্বাস্থ্য বিভাগ প্রতি মাসে তাদের প্রত্যেককে কম করে ২০টি খাদ্য নমুনা কেনার লক্ষ্য নির্ধারণ করে দিয়েছে।
এ কারণে তাদেরকে প্রায় প্রতিদিনই বাজারে যেতে হয়। প্রতিটি নমুনা আবার চারটি করে কিনতে হয়। দুটি নমুনা বঙ্গবাজারের পরীক্ষাগারে পাঠাতে হয়। অপর দুটির একটি বিক্রেতার কাছে, আরেকটি নিজের কাছে রাখতে হয়।
তারা আরও জানান, খাদ্যের নমুনা ভেজাল ও অস্বাস্থ্যকর প্রমাণিত হলে মামলা করতে কমপক্ষে চারবার আদালতে হাজির হতে হয়।
এ বিষয়ে জিজ্ঞেস করা হলে উত্তর সিটির প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ব্রিগেডিয়ার জেনারেল জোবায়দুর রহমান বলেন, ‘খাদ্য নমুনা কেনার ভাউচার জমা দিলে তাদেরতো টাকা পাওয়ার কথা, কেন পাননি তা দেখতে হবে। নিজের পয়সায় তো কিনতে বলা হয়নি। বিল সাবমিট করবে বিল পাবে, এটাই হচ্ছে নিয়ম।’
বিষয়টি এতদিন তাকে জানানো হয়নি উল্লেখ করে প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা সেলিম রেজা বলেন, ‘এ টাকা তাদের প্রাপ্য। তারা অবশ্যই এ টাকা পাবেন। শিগগিরই তাদের জন্য অর্থ প্রদানের ব্যবস্থা করা হবে।’

spot_img
spot_img

এধরণের সংবাদ আরো পড়ুন

আশংকাজনক হারে বাড়ছে মুখের ক্যান্সার

বার্তাকক্ষ ,,বিশ্বে ক্যান্সারে মোট মৃত্যুর কারণের মধ্যে মুখের ক্যান্সার নবম। বিশ্বে সকল ক্যান্সারের মধ্যে...

দেশে ১০ কোটি টাকার বেশি সম্পদ আছে ২৮,৯৩১ জনের

বার্তাকক্ষ ,,২০২১ সালে দেশে ৫০ কোটি ডলার বা ৫ হাজার কোটি টাকার বেশি পরিমাণের...

যমুনা সার কারখানায় ফের উৎপাদন বন্ধ

বার্তাকক্ষ ,,যান্ত্রিক ত্রুটির কারণে দেশের সর্ববৃহৎ ইউরিয়া উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠান যমুনা সারকারখানায় ফের উৎপাদন বন্ধ...