৪ঠা আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ  । ১৮ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ 

শেয়ারবাজার সংস্কারে উদ্যোগ নেওয়া হচ্ছে: সালমান এফ রহমান

প্রতিদিনের ডেস্ক:
দেশের সার্বিক অর্থনীতিতে শেয়ারবাজারের সবচেয়ে বড় ভূমিকা থাকা দরকার বলে মনে করেন প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি শিল্প ও বিনিয়োগ বিষয়ক উপদেষ্টা সালমান ফজলুর রহমান।তিনি বলেন, ‘এত বড় অর্থনীতির তুলনায় আমাদের শেয়ারবাজার আরও শক্তিশালী থাকা দরকার। এ জন্য বাংলাদেশ ব্যাংক, এনবিআর, এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি) সবার সঙ্গে কথা বলছি। প্রধানমন্ত্রীও চান আমাদের শেয়ারবাজার আরও শক্তিশালী করতে। তাই শেয়ারবাজার শক্তিশালী করতে যা প্রয়োজন তা করতে হবে। শেয়ারবাজার সংস্কারের উদ্যোগ নেওয়া হচ্ছে।’বৃহস্পতিবার (৩০ মে) গুলশানে বিবিএক্স জরিপ প্রকাশ অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন তিনি। এবার তৃতীয়বারের মতো বিবিএক্স জরিপ করেছে মেট্রোপলিটন চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি (এমসিসিআই) ও বেসরকারি গবেষণাপ্রতিষ্ঠান পলিসি এক্সচেঞ্জ বাংলাদেশ।অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে সালমান এফ রহমান বলেন, ‘কর যারা দিচ্ছেন তাদের থেকে বেশি বেশি আদায় করা হচ্ছে। এখনো কীভাবে তাদের থেকে বেশি (কর) আদায় করা যায় তাই করা হচ্ছে। এতে লক্ষ্যমাত্রা অর্জিত হবে না। গত বছরের তুলনায় আমাদের রাজস্ব কমেছে, এটা ব্যর্থতা। এটা মোকাবিলা করা দরকার। এজন্য রাজস্ব আদায়ে আমাদের নেট (কারজাল) বাড়ানো দরকার।’তিনি বলেন, ‘আজ দেশে ব্যবসার অনুকূল পরিবেশ আছে বলেই আমরা ব্যবসা-বাণিজ্য করতে পারছি। আমাদের আরও দেশি-বিদেশি বিনিয়োগ আসা প্রয়োজন। অনুকূল পরিবেশ স্থিতিশীল রাখতে কাজ করতে হবে। দেশি-বিদেশি বিনিয়োগকারীদের উৎসাহিত করতে হবে। কারণ, এখানে বিনিয়োগের পরিবেশ রয়েছে, রাজনৈতিক পরিবেশ ভালো, অবকাঠামো উন্নয়ন হয়েছে।’ডলার পরিস্থিতি নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর এ উপদেষ্টা বলেন, ‘বাংলাদেশ ব্যাংকের পদক্ষেপে ডলারের দাম ১১৭ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে। এখন ডলারের বাজার অনেকটা নিয়ন্ত্রণে চলে এসেছে। যদিও মূল্যস্ফীতি সমস্যা রয়েই গেছে। আমাদের সুদহার বাজারমুখী করা হয়েছে, ডলারের বাজার ভালোর দিকে। আশা করছি আগামী জুলাই থেকে মূল্যস্ফীতি কমতে থাকবে।’তিনি আরও বলেন, ‘আমাদের গ্রোথ আগেও ভালো ছিল, বিশেষ করে করোনার আগে। কোভিডকালে যখন অর্থনীতি থমকে গিয়েছিল তখনো আমাদের প্রবৃদ্ধি ৫ শতাংশের ওপরে ছিল, যেটা দেখে বিশ্ব রোল মডেল বলেছিল। তবে ডলার শক্তিশালী আর রাশিয়া-ইউক্রেন পরিস্থিতি আমাদের ভাবিয়ে তোলে। জ্বালানির দাম বেড়ে যায়, আমদানিনির্ভর সব পণ্যের দাম অনেক বেশি হয়ে যায়। ডলার শক্তিশালী হওয়ায় চাপ বাড়ে রিজার্ভে।’অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন এমসিসিআই সভাপতি কামরান টি রহমান। উপস্থিত ছিলেন এমসিসিআইয়ের সাবেক সভাপতি ব্যারিস্টার নিহাদ কবিরসহ অন্যরা।

আরো দেখুন

Advertisment

জনপ্রিয়