১লা আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ  । ১৫ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ 

বাংলাদেশের বিপক্ষে বন্দুকধারীর মতো দ্রুতবেগে আঙুল তুলেছেন আম্পায়ার

প্রতিদিনের ডেস্ক
চলমান টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ম্যাচে চার রানে হেরেছে বাংলাদেশ। এই ম্যাচে বাংলাদেশের হারের পেছনে দায়ী করা হচ্ছে আম্পায়ারের একটি সিদ্ধান্তকে। যে সিদ্ধান্তে লেগবাই থেকে পাওয়া চার রান হারায় বাংলাদেশ। এমন সিদ্ধান্তে চটেছেন নিউ জিল্যান্ডের সাবেক ক্রিকেটার ও বর্তমান ধারাভাষ্যকার সাইমন ডল। ম্যাচের ১৭তম ওভারের ঘটনা। সেই ওভারের দ্বিতীয় বলে ওটনিল বার্টম্যানের বল মাহমুদউল্লাহর প্যাডে চুমো খেয়ে বাউন্ডারিতে চলে যায়। দক্ষিণ আফ্রিকা আবেদন করার সাথে সাথেই আঙুল তুলে দেন আম্পায়ার নোগাজস্কি। ক্রিকেটের আইন অনুসারে, বলটি বাউন্ডারিতে গেলেও ‘ডেড’ হয়ে যায়। তাতে চার রান থেকে বঞ্চিত হয় বাংলাদেশ।
ক্রিকেট বিষয়ক ভারতীয় ওয়েবসাইট ক্রিকবাজের সঙ্গে আলোচনা করার সময় এই বিষয়টি নিয়ে সমালোচনা করেন ডুল, ‘ভাবুন, বাংলাদেশের জায়গায় ভারত খেলছে ফাইনাল ম্যাচে।আমি বলতে চাইছি, যেভাবে এই পদ্ধতি কাজ করছে, সেখানে কিছু একটা পরিবর্তন অবশ্যই আনতে হবে। কারণ এটা খুবই বাজে একটা ভুল ছিল। একেবারেই বাজে সিদ্ধান্ত। একেবারে বন্দুকধারীর মত দ্রুতগতিতে হাত তুলেছে আম্পায়ার।’ ‘আর আমাদের বলতেই হবে পুরো টুর্নামেন্টেই আমরা খুব ভালো কিছু আম্পায়ারিং দেখেছি। কিন্তু এক্ষেত্রে সেটা ছিল না। তারচেয়ে বড় কথা, লেগবাই থেকে চার রান হওয়া দরকার ছিল। ধরা যাক, টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের শেষ বলে এটা ঘটলো। আর একটা দল এমন বাজে সিদ্ধান্তের কারণে হেরে গেল। যেভাবে এইসব চলছে, তাতে কিছু পরিবর্তন আনতেই হবে।’- আরও যোগ করেন ডুল। দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ম্যাচ হারায় সুপার এইট বাংলাদেশের জন্য খানিকটা কঠিন হয়ে গেলেও অসম্ভব না। প্রথম পর্বে গ্রুপ লড়াইয়ে বাংলাদেশের এখানো ম্যাচ বাকি আছে দুইটি। ১৩ মে নেদারল্যান্ডস এবং ১৭ মে নেপালের বিপক্ষে জিতলে সহজেই সুপার এইটে খেলবে নাজমুল হোসেন শান্তর দল। একটি হারলে রান রেটের হিসেব কষতে হবে।

আরো দেখুন

Advertisment

জনপ্রিয়